বাংলা ট্রিবিউন
শিক্ষার্থীকে গুলি করা মেডিক্যাল কলেজের সেই শিক্ষক রিমান্ডে

শিক্ষার্থীকে গুলি করা মেডিক্যাল কলেজের সেই শিক্ষক রিমান্ডে

সিরাজগঞ্জ শহীদ এম মনসুর আলী মেডিক্যাল কলেজের তৃতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী আরাফাত আমিন তমালকে গুলি করার ঘটনায় শিক্ষক ডা. রায়হান শরীফকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য পাঁচ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত। সোমবার (১১ মার্চ) বেলা পৌনে ১২টার দিকে সিরাজগঞ্জ অতিরিক্ত চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মো. বেলাল হোসেনের আদালতে অস্ত্র আইনে করা মামলায় পুলিশের সাত দিনের রিমান্ড আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে শুনানি শেষে রিমান্ড মঞ্জুর করেন। বিষয়টি নিশ্চিত করে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা জেলা গোয়েন্দা পুলিশের এসআই ইব্রাহিম হোসেন বলেন, ওই শিক্ষকের সঙ্গে আর কেউ জড়িত আছে কি না, তার অস্ত্রের উৎপত্তি কোথায়, তিনি কোথা ও কার কাছ থেকে অস্ত্র কিনলেন এসবসহ সার্বিক বিষয়ে জানতে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তাকে সাত দিনের রিমান্ড চেয়ে আদালতে আবেদন করা হয়। আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে শুনানি শেষে বিজ্ঞ আদালত তার পাঁচ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন। তিনি বলেন, মাত্রই শুনানি শেষে রিমান্ড আবেদন মঞ্জুর হলো। এখন আইনি প্রক্রিয়া সম্পন্ন করে জেল হাজত থেকে বিকালেই তাকে রিমান্ডে আনা হবে। গত বুধবার (৬ মার্চ) সকালে সিরাজগঞ্জ অতিরিক্ত চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মো. বেলাল হোসেনের আদালতে অস্ত্র আইনে করা মামলায় ডা. রায়হানের বিরুদ্ধে সাত দিনের রিমান্ড আবেদন করেন মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা জেলা গোয়েন্দা পুলিশের উপ-পরিদর্শক ইব্রাহিম হোসেন। পরে পরে সোমবার তার রিমান্ড শুনানির দিন ধার্য করা হয়। প্রসঙ্গত, গত ৪ মার্চ (সোমবার) বিকালে সিরাজগঞ্জের শহীদ এম মনসুর আলী মেডিক্যাল কলেজের শিক্ষার্থী আরাফাত আমিন তমালকে গুলি করেন কলেজের শিক্ষক ডা. রায়হান শরীফ। এ ঘটনায় অভিযুক্ত শিক্ষকের বিচার চেয়ে বিক্ষোভ করেন শিক্ষার্থীরা। এরপর সন্ধ্যায় তাকে আটক করে ডিবি কার্যালয়ে নেয় পুলিশ। এ সময় তার কাছ থেকে দুটি পিস্তল উদ্ধার করা হয়। পরে রাতে তার বিরুদ্ধে থানায় মামলা করেন ভুক্তভোগী শিক্ষার্থীর বাবা। পাশাপাশি অবৈধ অস্ত্র রাখার দায়ে অস্ত্র আইনে আরেকটি মামলা হয় তার বিরুদ্ধে।
Published on: 2024-03-11 09:06:08.712501 +0100 CET

------------ Previous News ------------