ইত্তেফাক
নৌকায় ভোট না দিলে ভাতা বন্ধের হুমকি আওয়ামী লীগ নেতার

নৌকায় ভোট না দিলে ভাতা বন্ধের হুমকি আওয়ামী লীগ নেতার

*জামালপুরে হাতেম আলী নামে এক আওয়ামী লীগ নেতার বিরুদ্ধে নৌকায় ভোট না দিলে ভাতা বন্ধের হুমকি দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে। ইতিমধ্যে আওয়ামী লীগ নেতার হুমকি দেওয়ার একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে ভাইরাল হয়েছে।* মঙ্গলবার (১৯ ডিসেম্বর) বিকালে সদর উপজেলার লক্ষ্মীরচর ইউনিয়নের বারুয়ামারী বাজারে এক সভায় তিনি এ হুমকি দেন। অভিযুক্ত হাতেম আলী সদর উপজেলার লক্ষ্মীরচর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি। ভিডিওতে হাতেম আলী তারাকে বলতে শোনা যায়, গত ১৫ বছর ধরে সামাজিক নিরাপত্তা বেষ্টনীর আওতায় যারা বিভিন্ন ভাতা ভোগ করছেন, তাদেরকে শিগগিরই ডাকা হবে। তাদের কেউ না আসলে ভিডিও ফুটেজ দেখে নির্বাচনের পর তাদের ভাতা বন্ধ করে দেওয়া হবে। এ সময় সেখানে উপস্থিত ছিলেন স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান মনিরুজ্জামান মনি। জামালপুর-৫ (সদর) আসনের স্বতন্ত্র প্রার্থীকে উদ্দেশ্য করে হাতেম আলীকে আরও বলতে শোনা যায়, আপনি মনোনয়ন আনতে পারেননি, মনোনয়ন আনলে আমরা আপনাকে বিপুল ভোটে বিজয়ী করতাম। আপনি আমাদের মধ্যে শান্তি নষ্ট করবেন না, যদি শান্তি নষ্ট করেন তাহলে আপনাদের অবস্থাও বিএনপির মতো হবে। জানা গেছে, এ আসনে জেলা আওয়ামী লীগ সদস্য, এফবিসিসিআই এর পরিচালক ও চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রির সভাপতি রেজাউল করিম রেজনু সিআইপি স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে (ঈগল প্রতীক) প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। অভিযুক্ত আওয়ামী লীগ নেতা হাতেম আলী তারা বলেন, ভাতা বন্ধ করা হবেনা, ইউপি চেয়ারম্যান তাদেরকে ডেকে নৌকায় ভোট দেওয়ার সুপারিশ করবেন। এ বিষয়ে দলীয় সিদ্ধান্ত হয়েছে। এ বিষয়ে লক্ষ্মীরচর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মনিরুজ্জামান মনি বলেন, এ ধরনের ঘটনা অনাকাঙ্ক্ষিত ও লজ্জাজনক। সাধারণ জনগণকে জিম্মি করার এখতিয়ার কারোর নাই। কাউকে জিম্মি করে ভোট নেওয়ার কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি বা হবেও না। জনগণ যাকে খুশি তাকে ভোট ভোট দেবেন, এতে কেউ বাধা দিতে পারবে না। ভবিষ্যতে এ ধরনের ঘটনা যাতে না ঘটে সে ব্যাপারে নিজেও সতর্ক থাকবো এবং সবাইকে সতর্ক করবো। সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মেহনাজ ফেরদৌস বলেন, বিষয়টি নিয়ে কেউ কোনো অভিযোগ করেননি। তবে একটি ভিডিও নজরে এসেছে। পরবর্তীতে যাতে এ ধরনের ঘটনা না ঘটে তার জন্য সংশ্লিষ্টদের সতর্ক করা হবে।
Published on: 2023-12-20 17:05:21.036923 +0100 CET