দৈনিক জনকণ্ঠ
পদ্মা সেতু হয়ে ঢাকার পথে ট্রায়াল ট্রেন চলাচলের জন্য প্রস্তুত

পদ্মা সেতু হয়ে ঢাকার পথে ট্রায়াল ট্রেন চলাচলের জন্য প্রস্তুত

ঢাকা থেকে ফরিদপুরের ভাঙ্গা পর্যন্ত প্রায় ৮২ কিলোমিটার রেলপথ এখন ট্রেন চলাচলের জন্য প্রস্তুত স্বপ্নের পদ্মা সেতুতে। তাই সেতুটির ওপর দিয়ে এই পথে পরীক্ষামূলক একটি নতুন ট্রেন রাজবাড়ী থেকে ছেড়ে গেছে। বৃহস্পতিবার আনুষ্ঠানিকভাবে ট্রেনটি কমলাপুর থেকে ভাঙ্গায় আসবে। পরীক্ষামূলক এ চলাচল চলবে ১০ অক্টোবর পর্যন্ত। বুধবার সকাল পৌনে ১১টায় রাজবাড়ী থেকে ঢাকার কমলাপুরের উদ্দেশে ট্রায়াল ট্রেনটি ছেড়ে যায়। বাংলাদেশ রেলওয়ে বিভাগ রাজবাড়ীর স্টেশন মাস্টারের কার্যালয় সূত্র জানিয়েছে, বৃহস্পতিবার আনুষ্ঠানিকভাবে নতুন এই রেলপথ দিয়ে প্রথম ঢাকা থেকে ভাঙ্গা স্টেশনে আসবে ট্রায়াল ট্রেনটি। আগামী ১০অক্টোবর  প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এই রেলপথের উদ্বোধন করবেন। পুরো প্রকল্পে নির্মাণ হতে যাওয়া ঢাকা থেকে যশোর পর্যন্ত রেলপথের দৈর্ঘ্য ১৭২ কিলোমিটার। রাজবাড়ীর রেলওয়ে স্টেশন মাস্টার তন্ময় কুমার দত্ত জানান, মঙ্গলবার সকাল পৌনে ১০টার সময় ঈশ্বরদী থেকে ট্রায়াল ট্রেনটি রাজবাড়ী এসে পৌঁছায়। ট্রেনটি আটটি কোচ ও একটি ইঞ্জিন নিয়ে বুধবার সকালে ছেড়ে গেছে। বৃহস্পতিবার রেলমন্ত্রীসহ রেলওয়ের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা ঢাকার কমলাপুর থেকে পদ্মা সেতু হয়ে ভাঙ্গায় আসবেন। এদিকে পদ্মা সেতু রেল সংযোগ প্রকল্পের পরিচালক মো. আফজাল হোসেন জানিয়েছেন, আগামীকাল (বৃহস্পতিবার) সাতটি কোচ দিয়ে পরীক্ষামূলকভাবে রেল চলাচল শুরু হবে। তিনিও জানান, ১০ অক্টোবর প্রধানমন্ত্রী রেল চলাচলের উদ্বোধন করবেন। প্রকল্প পরিচালক জানান, ঢাকার কমলাপুর রেল স্টেশন থেকে ভাঙ্গা জংশন পর্যন্ত প্রায় ৮২ কিলোমিটার রেল পথের কাজ পুরোপুরি শেষ। শুরুতে মাওয়া প্রান্তে মাওয়া স্টেশন, পদ্মা সেতু পার হওয়ার পর পদ্মা স্টেশন এবং ভাঙ্গা জংশন স্টেশন পর্যন্ত রেল চলাচল করবে। পদ্মা সেতু রেল সংযোগ প্রকল্পের ব্যয় হবে প্রায় ৩৯ হাজার কোটি টাকা। ২০২৪ সালের জনে ফেস দুইয়ের কাজ শেষ হবে বলেও জানান প্রকল্প পরিচালক।
Published on: 2023-09-06 13:31:15.678023 +0200 CEST