যায়যায়দিন
চাঁদপুর মাছঘাটে আসছে ইলিশ, ফিরেছে কর্মচাঞ্চল্য

চাঁদপুর মাছঘাটে আসছে ইলিশ, ফিরেছে কর্মচাঞ্চল্য

২২ দিনের নিষেধাজ্ঞা শেষে নদীতে মাছ ধরতে নেমেছেন জেলেরা। ইলিশ আহরণ শুরু হওয়ায় আবারও সরগরম হয়ে উঠেছে চাঁদপুর বড়স্টেশন মাছঘাট। শুক্রবার সকাল থেকে চাঁদপুরের পদ্মা-মেঘনাসহ দক্ষিণাঞ্চলের বিভিন্ন স্থান থেকে অর্ধশতাধিক ট্রলার ইলিশ নিয়ে চাঁদপুর মাছঘাটে আসছে। এতে কর্মব্যস্ততা শুরু হয়েছে শ্রমিক-ব্যবসায়ীদের মাঝে। ঘাটে গিয়ে দেখা যায়, ব্যবসায়ী-শ্রমিকদের হাঁকডাকে মুখরিত বড়স্টেশন মাছঘাট। জেলেদের আহরিত ইলিশ ঝুপড়ি করে আড়তে এনে স্তূপ করছে শ্রমিকরা। আর সেই ইলিশ হাঁকডাক দিয়ে বিক্রি হচ্ছে। ইলিশ কিনতে আসা সুশান্ত জানান, প্রথমদিন হিসেবে ভালো ইলিশ ঘাটে এসেছে। দাম আগের মতোই। দবে অধিকাংশ ইলিশ আগের বলে মনে হচ্ছে। দাম কমলে আরও ইলিশ কেনার পরিকল্পনা রয়েছে। চাঁদপুর মৎস্য বণিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক শবে বরাত সরকার বলেন, ঘাটে বেচাকেনা নিষিদ্ধ ছিল ২২ দিন। আজ প্রথম দিন হিসেবে বিভিন্ন স্থান থেকে ইলিশ আসছে। সারাদিনে এক হাজার মণ ইলিশ সরবরাহ হতে পারে। ইলিশের পাশাপাশি পাঙাশ ও অন্যান্য মাছ পাওয়া যাচ্ছে। যা ক্রেতাদের আকৃষ্ট করে থাকে। আরও কিছুদিন গেলে বোঝা যাবে ইলিশ কেমন পাওয়া যাচ্ছে। জেলেরা ইলিশ পেলে সরবরাহ বাড়বে। আর তখন দাম কমার সম্ভাবনা রয়েছে। ইলিশের অভয়াশ্রম কর্মসূচির আওতায় চাঁদপুরের পদ্মা-মেঘনা নদীর ৭০ কিলোমিটার এলাকায় গত ১২ অক্টোবর থেকে ২ নভেম্বর পর্যন্ত ইলিশসহ সব ধরনের মাছ ধরা নিষিদ্ধ ছিল। নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে মাছ ধরায় অসাধু জেলেদের জেল-জরিমানা করাসহ বিপুল পরিমাণ জাল ও ইলিশ জব্দ করেছে প্রশাসন। যাযাদি/ এস
Published on: 2023-11-03 07:29:56.144636 +0100 CET