যায়যায়দিন
দেশের মানুষ শিক্ষিত হোক বিএনপি-জামায়াত তা চায়নি : প্রধানমন্ত্রী

দেশের মানুষ শিক্ষিত হোক বিএনপি-জামায়াত তা চায়নি : প্রধানমন্ত্রী

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, শিক্ষা খাতের উন্নয়নে আওয়ামী লীগের নানা উদ্যোগ বিএনপির আমলে বন্ধ হয়ে যায়। দেশের মানুষ শিক্ষিত হোক বিএনপি-জামায়াত তা চায়নি। রোববার (১৬ জুলাই) সকাল পৌনে ১১টার পর রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় আয়োজিত 'অধ্যক্ষ সম্মিলন ও বৃত্তি প্রদান’ অনুষ্ঠানে এমন মন্তব্য করেন তিনি। শেখ হাসিনা বলেন, ২০০৮ সালের আগ পর্যন্ত দেশের বিভিন্ন ক্যাম্পাসে অস্ত্রের ঝনঝনানি ও বোমাবাজি ছিল। বর্তমানে সেই পরিস্থিতি নেই। আওয়ামী লীগ সরকারে আসার পর বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে স্বাভাবিক পরিবেশ ফিরিয়ে আসতে সক্ষম হয়েছে। শেখ হাসিনা বলেন, গত ১৪ বছরে শিক্ষাখাতের আমূল পরিবর্তন করতে সক্ষম হয়েছে সরকার। প্রাথমিক থেকে বিশ্ববিদ্যালয় পর্যন্ত শিক্ষার মান ও সব প্রতিষ্ঠান উন্নত করতে ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। অনুষ্ঠানে চারটি বিষয়ে মাস্টার্স প্রোগ্রাম চালুসহ জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ফিজিক্যাল মাস্টারপ্ল্যান উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী। অনুষ্ঠানে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের মেধাবী অস্বচ্ছল ও বিশেষ চাহিদা সম্পন্ন শিক্ষার্থীদের বৃত্তির চেক তুলে দেন সরকারপ্রধান। বঙ্গবন্ধুকন্যা বলেন, এখন পর্যন্ত শিক্ষায় সর্বোচ্চ ২১ দশমিক এক ছয় শতাংশ বরাদ্দ করে নজির স্থাপন করেন জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু। বিজ্ঞান ও কারিগরি শিক্ষায় গুরুত্ব দিয়েছিলেন। আওয়ামী লীগ শিক্ষাকে গুরুত্ব দেয় বলে চলতি অর্থবছরেও বরাদ্দ রেখেছে ৮৮ হাজার কোটি টাকার বেশি। শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি ও শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল অনুষ্ঠানে উপস্থিত আছেন। জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. মশিউর রহমানের সভাপতিত্বে আয়োজিত অনুষ্ঠানে সারাদেশ থেকে বিশ্ববিদ্যালয়ের অধিভুক্ত ২২৫৭টি কলেজের অধ্যক্ষরা অংশ নিয়েছেন। যাযাদি/ এসএম
Published on: 2023-07-16 08:12:35.677522 +0200 CEST