প্রথম আলো
মেট্রোরেল চলাচলে মাঝের বিরতি দুই মিনিট কমানোর ব্যবস্থা হচ্ছে: ওবায়দুল কাদের

মেট্রোরেল চলাচলে মাঝের বিরতি দুই মিনিট কমানোর ব্যবস্থা হচ্ছে: ওবায়দুল কাদের

মেট্রোরেল চলাচলে মাঝের বিরতি (ফ্রিকোয়েন্স) দুই মিনিট করে কমানোর ব্যবস্থা হচ্ছে। তবে বগির সংখ্যা বাড়বে না। এ কথা জানিয়েছেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। আজ সোমবার সচিবালয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী এ কথা বলেন। সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলার আগে বাংলাদেশে নিযুক্ত রাশিয়ার রাষ্ট্রদূত সাক্ষাৎ করেন মন্ত্রীর সঙ্গে। ঢাকায় মেট্রোরেল-ব্যবস্থা নির্মাণ ও পরিচালনার দায়িত্বে থাকা ঢাকা ম্যাস ট্রানজিট কোম্পানি লিমিটেড (ডিএমটিসিএল) বলছে, উত্তরা থেকে মতিঝিল পর্যন্ত সাড়ে তিন মিনিট পরপর ট্রেন চালানোর সক্ষমতা আছে তাদের। এখন চলছে ১০ থেকে ১২ মিনিট বিরতিতে। পুরোদমে এবং বাড়তি সময় ট্রেন চালাতে বাড়তি জনবল দরকার। জনবলের প্রশিক্ষণ দরকার। সেখানে ঘাটতি রয়েছে।সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে আজ ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘বাংলাদেশে মেট্রোরেল চালু করা যাবে—এটি কয়েক বছর আগে স্বপ্নের মতো ছিল। বিশ্বের কোনো দেশে মেট্রোরেলের বগি পাঁচের বেশি না। বাংলাদেশে ইতিমধ্যে ছয়টি কাজ করছে। এটা ব্যবস্থা (ম্যানেজ) করা হয়েছে। এটি তো একটি কারিগরিসংক্রান্ত বিষয়। এটা সাধারণ রেলওয়ে না। তবে ফ্রিকোয়েন্সি দুই মিনিট করে কমানোর ব্যবস্থা হচ্ছে।’ ঢাকায় মেট্রোরেলের লাইন-৬ (উত্তরা-মতিঝিল) প্রকল্প নেওয়ার সময় পরিকল্পনা করা হয় যে সকাল থেকে রাত ১২টা পর্যন্ত ট্রেন চলাচল করবে। ঘণ্টায় ৬০ হাজার এবং দিনে ৫ লাখ যাত্রী পরিবহন করা যাবে। এর জন্য হিসাব করে লাইন-৬-এর অধীন ২৪ সেট ট্রেন কেনা হয়।বর্তমানে সকাল আটটা থেকে রাত সাড়ে আটটা পর্যন্ত উত্তরা থেকে মতিঝিল পর্যন্ত ট্রেন চলাচল করছে। ব্যস্ত সময় অর্থাৎ পিক আওয়ারে ১০ মিনিট পরপর এবং বাকি সময় ১২ মিনিট পরপর ট্রেন চলাচল করে।
Published on: 2024-02-12 09:21:30.695305 +0100 CET