প্রথম আলো
উখিয়ায় অপহরণের পর আরএসও সদস্যকে মাথায় গুলি করে হত্যা

উখিয়ায় অপহরণের পর আরএসও সদস্যকে মাথায় গুলি করে হত্যা

কক্সবাজারের উখিয়া উপজেলার কুতুপালং রোহিঙ্গা আশ্রয়শিবির থেকে রোহিঙ্গা সলিডারিটি অর্গানাইজেশনের (আরএসও) এক সদস্যকে অপহরণের পর মাথায় গুলি করে হত্যা করা হয়েছে। আজ মঙ্গলবার ভোরে আরাকান স্যালভেশন আর্মির (আরসা) সন্ত্রাসীরা এ হত্যাকাণ্ড ঘটিয়েছে বলে জানিয়েছে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী। নিহত ব্যক্তির নাম মোহাম্মদ জলিল (৩৫)। তিনি উখিয়ার কুতুপালংয়ের ৪ নম্বর রোহিঙ্গা আশ্রয়শিবিরের এ-৩ ব্লকের কামাল হোসেনের ছেলে। তিনি আরএসও–এর সক্রিয় সদস্য ছিলেন।মোহাম্মদ জলিলের মৃত্যুর তথ্য নিশ্চিত করে রোহিঙ্গা আশ্রয়শিবিরের নিরাপত্তায় নিয়োজিত ১৪-আর্মড পুলিশ ব্যাটালিয়নের (এপিবিএন) সহ-অধিনায়ক পুলিশ সুপার মো. আরেফিন জুয়েল প্রথম আলোকে বলেন, গতকাল সোমবার বিকেল সাড়ে চারটার দিকে কুতুপালং-৪ নম্বর আশ্রয়শিবিরের এফ ব্লকে এসে ১৫-২০ অস্ত্রধারী আরসা সন্ত্রাসী তিন রোহিঙ্গাকে অপহরণ করে পাহাড়ে নিয়ে যায়। তাঁদের মধ্যে জলিলকে আজ ভোররাতে মাথায় গুলি করে ফুটবল খেলার মাঠে ফেলে রাখে তারা। খবর পেয়ে এপিবিএনের সদস্যেরা তাঁকে উখিয়া বিশেষায়িত হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। পরে উখিয়া থানার পুলিশ লাশের সুরতহাল প্রতিবেদন তৈরি ময়নাতদন্তের জন্য কক্সবাজার সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠায়। এ ঘটনায় সন্ত্রাসীদের গ্রেপ্তারে আশ্রয়শিবিরে পুলিশ অভিযান চালাচ্ছে বলে জানান এই কর্মকর্তা।
Published on: 2024-02-06 11:02:06.805157 +0100 CET