The Business Standard বাংলা
সোমবার থেকে পেঁয়াজ আমদানির অনুমতি দিল সরকার

সোমবার থেকে পেঁয়াজ আমদানির অনুমতি দিল সরকার

রান্নার অত্যাবশ্যকীয় উপাদানে পেঁয়াজের দাম বাড়ার প্রতিক্রিয়ায় সরকার পণ্যটি আমদানির অনুমতি দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। পেঁয়াজের অস্বাভাবিক মূল্যবৃদ্ধির ফলে সীমিত আয়ের মানুষের ভোগান্তি কমাতে ভোক্তাদের স্বার্থে এ সিদ্ধান্ত নিয়েছে কৃষি মন্ত্রণালয়। রোববার কৃষি মন্ত্রণালয়ের জনসংযোগ কর্মকর্তা কামরুল এ তথ্য জানান। রোববার সারা দেশের বিভিন্ন কাঁচাবাজারে পেঁয়াজের দাম কেজিতে ১০০ টাকা পর্যন্ত পৌঁছে গেছে। ফলে স্বল্প আয়ের মানুষের পক্ষে পেঁয়াজ কেনা অসম্ভব হয়ে উঠেছে। গত ২১ মে প্রতি কেজির পেঁয়াজের দাম ৭০ থেকে ৮০ টাকায় উঠে যায়। অথচ মাস দেড়েক আগেও পেঁয়াজ ৩০ থেকে ৪০ টাকা কেজিতে বিক্রি হচ্ছিল। এর আগে ২০১৯ সালে সর্বোচ্চ ২২০ টাকা কেজিতে বিক্রি হয় পেঁয়াজ। গত সপ্তাহেই কৃষিমন্ত্রী মো. আব্দুর রাজ্জাক বলেছিলেন, বাজার পরিস্থিতি দেখে পেঁয়াজ আমদানির বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। এরপরও বাজায় পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে না আসায় পেঁয়াজ আমদানির এই পদক্ষেপ নিল সরকার। কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের তথ্যমতে, সরকারি প্রচেষ্টার ফলে দেশে গত দুই বছরে পেঁয়াজের উৎপাদন বেড়েছে ১০ লাখ টনের বেশি। এ বছর ৩৪ লাখ টনের বেশি পেঁয়াজ উৎপাদিত হয়েছে। সে তুলনায়, দেশে পেঁয়াজের বার্ষিক চাহিদা ২৬ থেকে ২৮ লাখ টন। তবে যথাযথ সংরক্ষণ ব্যবস্থা না থাকা এবং প্রতিকূল আবহাওয়ার কারণে স্থানীয়ভাবে উৎপাদিত পেঁয়াজের ৩০-৩৫ শতাংশ নষ্ট হয়ে যাচ্ছে।
Published on: 2023-06-04 15:10:26.272839 +0200 CEST